• ঢাকা
  • শুক্রবার, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ; ২৩ ফেরুয়ারী, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • Govt. SL. No:-352

Advertise your products here

নান্দনিক গ্র্যান্ড সুলতান রিসোর্টে হবিগঞ্জ প্রেসক্লাব পরিবার


ডে-নাইট-নিউজ ; প্রকাশিত: সোমবার, ১২ ফেরুয়ারী, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১১:০২ এএম;
নান্দনিক গ্র্যান্ড সুলতান রিসোর্টে হবিগঞ্জ প্রেসক্লাব পরিবার
নান্দনিক গ্র্যান্ড সুলতান রিসোর্টে হবিগঞ্জ প্রেসক্লাব পরিবার

জেলার সাংবাদিকদের সর্বোচ্চ সংগঠন ঐতিহ্যবাহী হবিগঞ্জ প্রেসক্লাব সেই লক্ষ্যে প্রতি বছরের ন্যায় এবারও গত শনিবার সদস্যদের জন্য ফ্যামিলি ডে’র আয়োজন করে। এ উপলক্ষে কিছুদিন পুর্বে বর্তমান নির্বাহী কমিটিবের হন স্থান নির্ধারনের জন্য। মৌলভীবাজারের বিভিন্ন স্পট পরিদর্শন করে নির্ধারণ করা হয় ‘মৌলভীবাজার জেলার শ্রীমঙ্গলের বৃহৎ ও নান্দনিক ‘গ্র্যান্ড সুলতান রিসোর্ট’।.

বর্তমান সময়ে ব্যস্ততম এক পেশার নাম সাংবাদিকতা। একসময় শুধু প্রিন্ট মাধ্যম থাকলেও, এখন টেলিভিশন, ওয়েভ, ফেসবুক, ইউটিউবের মত নানা মাধ্যমে কাজ করার ফলে একজন গণমাধ্যমকর্মীর পক্ষে তার পরিবারকে সময় দেয়া অত্যন্ত দুরুহ ব্যাপার। হবিগঞ্জ জেলার সাংবাদিকরাও এর ব্যতিক্রম নন। পরিবারের সঙ্গে আনন্দময় একটি দিন কাটানোর সুযোগ, এই সাংবাদিকদের জন্য আরো কয়েক মাস কাজের শক্তি এনে দেয়। সদস্যরা তাদের পরিবার-স্বজন নিয়ে হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবে আসতে শুরু করেন। হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে সবাইকে সকালের নাস্তা সরবরাহ করা হয়। ফ্যামিলি ডে সফল করতে নানা আয়োজনের সমন্বয় করতে থাকেন হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি রাসেল চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক আবু হাসিব খান চৌধুরী পাবেল।.

শীতের শেষ মূহুর্তের কুয়াশাচ্ছন্ন মিষ্টি রোদ যখন উঁকি দিচ্ছিল, তখন হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সামন থেকে তিনটি বাস শ্রীমঙ্গলের গ্র্যান্ড সুলতানের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু করে। বাস চলার সাথে সাথেই সাবেক সভাপতি মোঃ ফজলুর রহমানের পরিকল্পনায় র‌্যাফেল ড্র বিক্রি শুরু করেন যুগ্ম সম্পাদক শরীফ চৌধুরী, কোষাধ্যক্ষ আশরাফুল ইসলাম কুহিনুর, নুরুল হক কবির, জাকারিয়া চৌধুরী, কাউছার আহমেদ ও সাইফুর রহমান তারেক। কিছুক্ষণ পরপর বাস থামিয়ে র‌্যাফেল ড্রয়ের টিকিট বিক্রয়কারীরা বাস বদল করেন। যাতে একজনের কাছে অনেকগুলো টিকিট বিক্রি করা যায়।.

এতে তারা সফলতাও দেখিয়েছেন। পুরো যাত্রাপথটাই এ কারণে আনন্দমুখর হয়ে ওঠে। যাত্রীরা কেহ টেরই পাননি কখন পৌছে গেলেন গন্তব্যে।
বেলা সাড়ে ১১টায় সাংবাদিক ও তাদের পরিবারের দেড় শতাধিক মানুষকে নিয়ে গ্র্যান্ড সুলতান পৌঁছায় হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের ফ্যামিলি ডে’র তিনটি বাস। রিসোর্টের নউমি মনজিলে যান সকলে। এরপর সেখান থেকে সাংবাদিকরা নিজেদের পরিবার নিয়ে গ্র্যান্ড সুলতান ঘুরতে বের হন। কেউ কেউ বাচ্চাদের নিয়ে যান কিডস্ জোনে। এই জোনটিই মূলত আনন্দের কেন্দ্র বিন্দু ছিল। যেখানে শিশুরা উচ্ছ¡ল হয়ে ওঠে। পাশাপাশি গ্র্যান্ড সুলতানের নান্দনিক পরিবেশে ছবি ও সেলফি তুলেন কেউ কেউ। দুপুরের খাবারের জন্য পূর্ব নির্ধারিত সময় বেলা ২টায় সকলে আবারো নউমি মনজিলে ফিরেন। বুফে পদ্ধতিতে সকলেই নিজের প্লেট নিয়ে খাবার সংগ্রহ করেন।.

ফ্যামিলি ডে’তে রসনা বিলাসের জন্য খাবারের নানা মেন্যুর মধ্যে ছিল- মিক্সড বাংলা সালাদ, ছানা, আলু ভর্তা, সিম ভর্তা, টমেটো ইউজেস, লেমন উইজেস, কুকুম¦ার ¯øাইস, অনিয়ন রিং, গ্রিন চিলি, পিকল। প্রধান খাবার হিসেবে ছিল মাটন বিরিয়ানি, কাটারিভোগ চালের সাদা ভাত, রুই মাছের দোপেঁয়াজো, চিকেন ঝাল ফ্রাই, মিক্সড ভেজিটেবল কারি ও মুরিঘন্ট। ডেজার্ট হিসেবে দেয়া হয় শাহী জর্দা পোলাও ও বালাসাম। সাথে ছিল সফট ড্রিংকস। লাঞ্চের পর শুরু হয় প্রেসক্লাব সদস্য ও তাদের পরিবারের লোকজনকে পৃথক কয়েকটি খেলার ইভেন্ট।.

এডভোকেট শাহ ফখরুজ্জামানের তত্ত¡বধানে অনুষ্ঠিত খেলাধুলায় ক্লাব সদস্যদের ঝুঁড়িতে বল নিক্ষেপ খেলায় ১ম হন সায়েদুজ্জামান জাহির, ২য় শফিকুল আলম চৌধুরী ও ৩য় হন মোঃ ফজলুর রহমান। ঝুঁড়িতে বল নিক্ষেপে নারীদের ইভেন্টে ১ম সুইটি চৌধুরী, ২য় পিংকি চৌধুরী ও ৩য় হালিমা আক্তার। শিশুদের (মেয়ে) ১০০ মিটার দৌঁড় প্রতিযোগিতায় ১ম হয়েছে প্রজ্ঞা, ২য় সামিয়া ও ৩য় হয় আজরিন। শিশুদের (ছেলে) ১০০ মিটার দৌঁড়ে ১ম প্লাবন, ২য় তাশরিফ, ৩য় ফাহিম। ক্ষুদে শিশুদের দৌঁড় প্রতিযোগিতায় ১ম মানহা, ২য় সাইম ও ৩য় হয় আনান। খেলা পরিচালনায় সহযোগিতা করেন ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আবু হাসিব খান চৌধুরী পাবেল, যুগ্ম সম্পাদক শরীফ চৌধুরী, কোষাধ্যক্ষ আশরাফুল ইসলাম কহিনুর, সদস্য ফয়সল চৌধুরী, জাকারিয়া চৌধুরী, দপ্তর ও প্রকাশনা সম্পাদক কাউছার আহমেদ।.

বিকেল ৪টায় সবাই আবারো ফিরেন হল রুম নউমি মনজিলে। হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের ফ্যামিলি ডে’র আনন্দ বাড়াতে শ্রীমঙ্গল প্রেসক্লাবের সভাপতি বিকুল চক্রবর্তীর পরিচালনায় হয় একটি ফানসেশন। এরপর শুরু হয় সঙ্গীতানুষ্ঠান। হবিগঞ্জের বিশিষ্ট ব্যান্ড তারকা টুটন গানওয়ালা ব্যান্ড ও আধুনিক সঙ্গীত পরিবেশন করে। এছাড়াও সঙ্গীত পরিবেশন করেন শিল্পী ফারজানা সীমা। এতে কীবোর্ডে ছিলেন নূর আলম, অক্টোপ্যাডে আশীষ, গিটারে কালাম ও সাগর, কাজনে হিমাদ্রী এবং সাউন্ডে ছিল তোহফা সাউন্ড। সঙ্গীতানুষ্ঠানের পর হবিগঞ্জের সর্বজন শ্রদ্ধেয় সাংবাদিক হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মোঃ ফজলুর রহমানের জন্মদিন উপলক্ষে ক্লাবের পক্ষ থেকে কাটা হয় কেক। এই উপলক্ষে টুটন গানওয়ালা মাইলসের বিখ্যাত গান ‘আজ জন্মদিন তোমার’ গানটি পরিবেশন করেন। এসময় সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ মোঃ ফজলুর রহমানের সুন্দর ও দীর্ঘায়ূ কামনা করে শুভেচ্ছা জানান।.

এরপর সভাপতি রাসেল চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক আবু হাসিব খান চৌধুরী পাবেলের সঞ্চালনায় র‌্যাফেল ড্র পরিচালনা করেন হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মোঃ ফজলুর রহমান। এতে ৩০ সৌভাগ্যবানের হাতে পুরষ্কার তুলে দেন হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফা রফিক, সাবেক সভাপতি মো. ইসমাইল হোসেন, হারুনুর রশীদ চৌধুরী, চৌধুরী মোহাম্মদ ফরিয়াদ, সাবেক সহ-সভাপতি এডভোকেট নির্মল ভট্টাচর্য রিংকু, বর্তমান কমিটির সহ-সভাপতি মইনুল হাসান চৌধুরী টিপু, ক্লাবের সহযোগি সদস্য বাদল রায়, সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহ ফখরুজ্জামান, সায়েদুজ্জামান জাহির, চৌধুরী মাসুদ আলী ফরহাদ, রাশেদ আহমেদ খান, প্রদীপ দাশ সাগর।.

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন ক্লাবের সদস্য শফিকুল আলম চৌধুরী, আব্দুল হালিম, মঈনুদ্দিন আহমেদ, মো. ছানু মিয়া, আনিছুজ্জামান চৌধুরী রতন, নায়েব হোসাইন, আজহারুল ইসলাম চৌধুরী মুরাদ প্রমুখ। পুরো ফ্যামিলি ডে অনুষ্ঠানকে সফল করতে হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের অফিস সহকারী নিশিকান্ত দাস অক্লান্ত পরিশ্রম করেন। সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় হবিগঞ্জে যাত্রা শুরুর পূর্বে সভাপতি রাসেল চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক আবু হাসিব খান পাবেল চৌধুরী সবাইকে ধন্যবাদ জানিয়ে ফ্যামিলি ডে’র সমাপ্তি ঘোষণা করেন। রাত ৯টায় তিনটি বাস হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবে এসে থামলে সবাই নেমে যার যার গৃহে প্রত্যাবর্তন করেন।.

.

ডে-নাইট-নিউজ / মোঃ উজ্জ্বল আহমেদ, হবিগঞ্জ:-

সারাদেশ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ